১লা ডিসেম্বর, ২০২১ ইং | ১৬ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

শাহ লুৎফুর রহমান

প্রকাশিত হয়েছে: এপ্রিল - ১৬ - ২০১৭ | ৮: ৪২ অপরাহ্ণ | সংবাদটি 438 বার পঠিত

বিশ্বনাথের শাহ লুৎফুর রহমান প্রথম বিশ্বনাথী হিসেবে বাংলাদেশ নৌ-বাহিনীতে  প্রকৌশলী হিসেবে কাজ করেছিলেন।

বিশ্বনাথের শাহ লুৎফুর রহমান প্রথম বিশ্বনাথী হিসেবে বাংলাদেশ নৌ-বাহিনীতে  প্রকৌশলী হিসেবে কাজ করেছিলেন। তিনি ১৯৫৬ সালের ৪ঠা ফেব্রুয়ারী বিশ্বনাথ উপজেলার রামপাশা ইউনিয়নের পালেরচক গ্রামে জন্মগ্রহন করেন। বর্তমানে তিনি লামাকাজি ইউনিয়নের দিঘলী গ্রামে স্থায়ীভাবে বসবাস করছেন। তার পিতার নাম শাহ ফজলুর রহমান এবং মাতার নাম ওয়াহিদা খাতুন ।
শাহ লুৎফুর রহমান দুহাল সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রাথমিক শিক্ষা ,কুরুয়া হাইস্কুলে ৬ষ্ঠ  শ্রেনী থেকে ৭ম শ্রেনী পর্যন্ত এবং রামসুন্দর অগ্রগামী উচ্চ বিদ্যালয় থেকে ১৯৭২ সালে এস.এস.সি , এমসি কলেজ থেকে  ১৯৭৫ সালে ইন্টারমিডিয়েট  পাশ করে সিলেট পলিটেকনিকে ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ারিং কোর্সে ভর্তি হন ।

সেখানে প্রকৌশল ডিপ্লোমা (ম্যাক) পাস করে চাকুরী জীবনের শুরুতে  কিছুদিন সিলেট পলিটেকনিকে শিক্ষকতা করে, পরবর্তীতে বাংলাদেশ নৌ-বাহিনীতে প্রকৌশল বিভাগে যোগদান করেন। শাহ লুৎফুর রহমান সিংগাপুরে জাহাজ রক্ষনাবেক্ষণে উচ্চতর প্রশিক্ষন প্রাপ্ত হন। তাছাড়া বিভিন্ন সময় দেশ বিদেশের বিশেষজ্ঞদের তত্ত্বাবধানে উচ্চতর প্রশিক্ষন গ্রহন করেন। যেমন বন্দরে জাহাজ গমনাগমন পর্যবেক্ষন PILOT DUTY  ইত্যাদি । একজন সুদক্ষ ও সুযোগ্য প্রশিক্ষক হিসেবে তিনি নৌ-বাহিনীতে  প্রায় ২৩ বছর সহকারী বিভাগীয় কর্মকর্তার দায়িত্ব পালন করেন। জুনিয়র ম্যানেজমেন্ট ,সিনিয়র ম্যানেজমেন্ট, স্মল ভেসেল চার্জ সার্টিফিকেট (SVCC) প্রভৃতি গুরুত্বপূর্ণ পেশাগত কোর্স সম্পন্ন করেন । বিভিন্ন সময় পদন্নোতি প্রাপ্ত হয়ে সর্বশেষ বাংলাদেশ নৌ-বাহিনীর  চিফ ইঞ্জিনিয়ারিং আর্টিফিসার হিসেবে ২০০২ সালে অবসর গ্রহন করেন।
ব্যাক্তিগত জীবনে তিনি ১৯৮৪ সালে বেগম বাহার চৌধুরীর সাথে বিবাহ বন্দনে আবদ্ব হন ।সুখী এই দম্পতির রয়েছে ২ পুত্র সন্তান । প্রথম পুত্র শাহ মিনহাজ সিলেট মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটির একাউন্টস অফিসার হিসেবে কিছুদিন কাজ করে যোগদেন এন.আর.বি ব্যাংক সিলেট শাখায় ।সেখানে কিছুদিন চাকরি করার পর বর্তমানে যুক্তরাজ্যে বসবাস করছেন।  দ্বিতীয় পুত্র ডা.শাহ ইমতিয়াজ রহমান ঢাকার  হোসেন শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজে ইন্টার্নি ডাক্তার হিসেবে কর্মরত।

error: Content is protected !!